লঞ্চ চলাচল সাময়িক বন্ধ থাকার পর আবার স্বাভাবিক

আলোকিত সকাল ডেস্ক

ঝড়ো হাওয়ার কারণে রাজধানীর সদরঘাট থেকে লঞ্চ চলাচল সাময়িক বন্ধ থাকার পর তা আবার স্বাভাবিক হয়েছে। তবে বরিশাল থেকে সব রুটে লঞ্চ চলাচল সাময়িক বন্ধ রাখা হয়েছে বলে জানিয়েছে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌপরিবহন কর্তৃপক্ষ (বিআইডব্লিউটিএ)।

ঈদযাত্রার ৩য় দিনে রোববার (২ জুন) সকালে ঝড়ো হাওয়ার কারণে দক্ষিণাঞ্চলের ৪৩টি রুটের যাত্রীবাহী লঞ্চ চলাচল সাময়িকভাবে বন্ধ রাখা হয়। স্বজনদের সঙ্গে ঈদ করতে এসময় সদরঘাটে লঞ্চ ধরতে আসা যাত্রীদের থাকতে হয়।

বিআইডব্লিউটিএর পরিবহন পরিদর্শক দিনেশ কুমার সাহা জানান, বৃষ্টির সঙ্গে প্রবল বাতাস শুরু হওয়ায় সকাল সাড়ে ১০টা থেকে কোনো লঞ্চকে ঘাট ছাড়ার অনুমতি দেয়া হয়নি। সাড়ে ১০টার পর দুটো লঞ্চ চাঁদপুরের উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়ার কথা থাকলেও সেগুলো আর যায়নি।

তিনি জানান, আবহাওয়া অধিদপ্তর ঢাকা নৌবন্দরকে ২ নম্বর নৌ হুঁশিয়ারি সংকেত দেখাতে বলেছে। এই সংকেতে সাধারণত ৬৫ ফুটের বেশি দৈর্ঘ্যের লঞ্চ চলাচল করতে পারে। কিন্তু ঝড়ো হাওয়ার কারণে বাড়তি সতর্কতা হিসেবে সব ধরনের লঞ্চ চলাচল আপাতত বন্ধ রাখা হয়েছে। আবহাওয়ার উন্নতি হলে আবার চলাচল শুরু হবে।

ঈদযাত্রার দ্বিতীয় দিন শনিবার (১ জুন) সারা দিনে ১০৩টি লঞ্চ সদরঘাট থেকে দেশের বিভিন্ন গন্তব্যের উদ্দেশ্যে ছেড়ে যায়। আজ রোববার সকাল থেকে সাড়ে ১০টা পর্যন্ত ছেড়ে গেছে ২৩টি লঞ্চ।

এদিকে বৈরী আবহাওয়ার কারণে প্রায় এক ঘণ্টা বন্ধ থাকার পর পাটুরিয়া-দৌলতদিয়া নৌ রুটে আবার ফেরি ও লঞ্চ চলাচল শুরু হয়েছে। মানিকগঞ্জের পুলিশ সুপার রিফাত রহমান শামীম জানান, দুর্ঘটনা এড়াতে সকাল ৯টা ২০ মিনিট থেকে এই রুটের সব ধরনের ফেরি চলাচল বন্ধ রাখা হয়। তবে আবহাওয়া কিছুটা ভালো হওয়ায় ১০টা ১৫ মিনিট থেকে আবার লঞ্চ ও ফেরি চলাচল শুরু হয়েছে।

আস/এসআইসু

Facebook Comments Box