পুত্রকে গলা কেটে হত্যা, মা-মেয়ের মৃত্যু শ্বাসরোধে

আলোকিত সকাল ডেস্ক

রাজধানীর উত্তরখানে উদ্ধার হওয়া ছেলে-মেয়ে ও মায়ের মরদেহের ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়েছে। সোমবার দুপুরে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে এই ময়নাতদন্ত সম্পন্ন হয়।

ময়না তদন্তের পর ঢামেক ফরেনসিক বিভাগের প্রধান অধ্যাপক সোহেল মাহমুদ জানান, তিনজনের মধ্যে ছেলেকে গলা কেটে হত্যা। মেয়ে ও মার মৃত্যু হয়েছে শ্বাসরোধে। যদিও মায়ের পেটে ও গলায় ছুরিকাঘাতের দাগ রয়েছে। কিন্তু সেই আঘাতে তার মৃত্যু হয়নি।

ময়না তদন্ত শেষে সোমবার দুপুর তিনটায় ফরেনসিক বিভাগের সামনে সাংবাদিকদের সঙ্গে কথা বলেন অধ্যাপক সোহেল মাহমুদ।

তিনি আরও বলেন, মৃত্যুর ৭২ ঘণ্টা পেরিয়ে যাওয়ায়, লাশের সব আলামতগুলো স্পষ্ট নয়। তারপরও আমরা পূর্ণাঙ্গ রিপোর্ট পেলে চূড়ান্তভাবে বলতে পারবো। তবে প্রাথমিকভাবে আমরা এটাকে হোমিসাইডাল হিসেবে ধরে নিয়েছি। ছেলেকে যে হত্যা করা হয়েছে সেটাও স্পষ্ট।

উল্লেখ্য, রাজধানীর উত্তরখান এলাকার একটি বাসা থেকে রোববার রাতে দুই সন্তানসহ এক মায়ের লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। তারা হলেন মা জাহানারা বেগম মুক্তা (৪৮), ছেলে কাজী মহিব হাসান রশ্মি (২৮) ও মেয়ে আফিয়া সুলতানা মিম (২০)।

লাশের পাশে পাওয়া একটি চিরকুটে বলা হয়, তারা আত্মহত্যা করেছেন। তাদের মৃত্যুর জন্য পরিবারের অবহেলাই দায়ী। তবে তাদের মৃত্যুর বিষয়ে রহস্যের জাল এখনও কাটেনি। পুলিশ কর্মকর্তারা বলছেন, মা ও তার দুই সন্তান আত্মহত্যা করেছেন নাকি তাদের কেউ হত্যা করেছে, তা এখনও পরিষ্কার নয়।

আস/এসআইসু

Facebook Comments Box