নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে আত্মবিশ্বাসী বাংলাদেশ

আলোকিত সকাল ডেস্ক

বিশ্বকাপের দুর্ভাগা দলগুলোর তালিকায় নিউজিল্যান্ড উপরের দিকেই থাকবে। প্রায় প্রত্যেকবার ফেভারিট হিসেবে বিশ্বকাপে অংশগ্রহণ করলেও শিরোপাটা অধরাই থেকে গেছে। বিশেষ করে সেমিফাইনালে এসে মুখ থুবড়ে পড়ে ব্ল্যাক ক্যাপরা। এর মধ্যে গত বিশ্বকাপে আরও কাছে অর্থাৎ রানারআপ হয়ে আফসোস বাড়িয়েছেন তারা। তবে এবার অনেক বেশি প্রত্যয়ী অধিনায়ক উইলিয়ামসন এবং তার সতীর্থরা। আগামীকাল বুধবার সেই প্রত্যয়ী দলের মুখোমুখি হচ্ছে টাইগাররা। এই দুদলেরই এটা দ্বিতীয় ম্যাচ।

নিজেদের প্রথম খেলায় দুর্দান্ত জয় ঘরে তুলে নিয়েছে দুদলই। নিউজিল্যান্ড তাদের প্রথম ম্যাচে শ্রীলঙ্কাকে রীতিমতো উড়িয়ে দিয়ে জিতেছে ১০ উইকেটে। পেসারদের তাণ্ডবে ২৯.২ ওভারে ১৩৬ রানে অলআউট হয় শ্রীলঙ্কা। ১৩৭ রানের মামুলি টার্গেট তাড়া করতে নেমে মাত্র ১৬.১ ওভারেই জয়ের বন্দরে পৌঁছে যায় নিউজিল্যান্ড। উইকেট খোয়ায়নি একটাও।

অন্যদিকে টাইগারদের সূচনাটাও দারুণ। গত রোববার দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে ওয়ানডেতে নিজেদের সর্বোচ্চ সংগ্রহ ৩৩০ করেছে টাইগাররা। টার্গেট অতিক্রম করতে গিয়ে লড়াই করেছে প্রোটিয়ারা কিন্তু লক্ষ্যে পৌঁছাতে পারেনি। দুর্দান্ত এই জয়ে ক্রিকেট বোদ্ধাদের অকুণ্ঠ প্রশংসা পেয়েছে টিম বাংলাদেশ। তবে টাইগার অধিনায়ক মাশরাফি কিন্তু সতর্ক। তার ভাষ্য, দলের সবারই শান্ত থাকা দরকার। আমরা কেবল একটি ম্যাচ জিতেছি। এখনো আট ম্যাচ বাকি। টুর্নামেন্টে এই একটা জয় কোনো জায়গা নিশ্চিত করবে না। এই জয়ে তাই খুব উচ্ছ্বসিত হওয়ার কিছু নেই। এখনো আমাদের সামনে অনেক পথ।

তবে আমরা এখনই সেমির মতো বড় লক্ষ্যর দিকে তাকাচ্ছি না। এটা কেবল একটা ম্যাচ। এই ম্যাচে পূর্ণ মনোযোগ ছিল আমাদের। এখন ওটা অতীত। আমাদের এখন নিউজিল্যান্ড ম্যাচ নিয়ে পরিকল্পনা করতে হবে। ম্যাচ জেতায় দল আত্মবিশ্বাসী থাকবে। তবে আমার চোখে আরও বড় চ্যালেঞ্জ আসছে। সামনের ম্যাচে হয়তো ব্যাটসম্যানদের আরও বড় পরীক্ষা দিতে হবে।

উচ্ছ্বাসে না ভেসে নিউজিল্যান্ড ম্যাচের দিকে তাকানোর পরামর্শ দিয়েছেন মাশরাফি। বলা বাহুল্য, আগামীকাল কঠিন পরীক্ষা দিতে হবে ব্ল্যাক ক্যাপদের বিপক্ষে। শ্রীলঙ্কাকে নিজেদের প্রথম ম্যাচে যেভাবে হারিয়েছে নিউজিল্যান্ড তা এখন পর্যন্ত বিশ্বকাপের সবচেয়ে বড় জয়। তাই সতর্ক হতে হবে টাইগারদের।

আস/এসআইসু

Facebook Comments Box