জেনে নিন, ভিলেন ঐশ্বরিয়ার গল্প কথা

আলোকিত সকাল ডেস্ক

দু’বছরের খরা কাটিয়ে ফের মনিরত্নমের হাত ধরে বলিউডে কামব্যাক করছেন ঐশ্বর্য রাই। তবে নায়িকা নয়, বরং ভিলেনের রোলে দেখা যাবে তাঁকে। কল্কি কৃষ্ণমূর্তির ঐতিহাসিক উপন্যাস ‘পন্নিইন সেলভান’-এর অনুসরণে তৈরি হচ্ছে এই ছবি।

সময়কাল দশম শতাব্দীর ভারত। তখন চোল বংশের রাজা রাজা চোল রাজত্ব করছেন। তার রাজকোষের দায়িত্বে থাকা পেরিয়ারের স্ত্রীর চরিত্রে অভিনয় করবেন ঐশ্বর্য। ছবিতে তাঁর নাম নন্দিনী। বিশদে চরিত্রটি সম্পর্কে জানা না গেলেও উপন্যাস অনুযায়ী শঠতা এবং ক্ষমতার লোভই নন্দিনীর জীবনের মূলমন্ত্র। যে তাঁর স্বামীকে ভুল বুঝিয়ে বিপথে চালনা করে, সাম্রাজ্যের পতন ঘটানোর জন্য।

এই বছরের গোড়ার দিকেই ঐশ্বর্যকে চিত্রনাট্য শোনান পরিচালক। ‘খাকি’-র পর দীর্ঘদিন খলনায়িকার চরিত্রে কাজ করেননি তিনি। ফলে ঝট করেই ছবিতে কাজ করার সিদ্ধান্ত নিয়ে ফেলেন অ্যাশ। কানাঘুষোয় খবর, সবকিছু ঠিকঠাক থাকলে মনিরত্নমের এই ছবিতে দেখা যেতে পারে অমিতাভ বচ্চনকেও। খবরটি যদি সত্যি হয়, তাহলে ১১ বছর পর ফের একসঙ্গে পর্দায় দেখা যাবে বিগবি-ঐশ্বর্যকে।

এই ছবিতে জয়রাম রবি, সিম্বু এবং বিক্রমের মতো বেশ কয়েকজন দক্ষিণী অভিনেতারাও আছেন। তবে নতুন এই ছবির নাম কী হবে তা এখনও পর্যন্ত জানা যায়নি। দেশজুড়ে ছবিটি একাধিক ভাষায় মুক্তি পাবে বলে জানা গিয়েছে।

মিস ইন্ডিয়া খেতাব জয়ের পর ৯৭ সালে মনিরত্নম পরিচালিত ‘ইরুভার’ ছবির হাত ধরেই রুপোলি জগতে পা রাখেন ঐশ্বর্য। এরপর ‘রাবণ’, ‘গুরু’-র মতো হিট ছবিতেও একসঙ্গে কাজ করেছেন তাঁরা। ছবির ইউনিটের আশা ফের পর্দায় সেই ম্যাজিক দেখা যাবে।

আস/এসআইসু

Facebook Comments Box