চাঁদপুরে পদ্মা-মেঘনায় ইলিশ ধরা শুরু

৭১কণ্ঠ ডটকম
চাঁদপুরে দু’মাস অলস সময় কাটানোর পর পেশাগত জেলেরা আজ শুক্রবার মধ্যরাতে রূপালী ইলিশ আহরণে পদ্মা-মেঘনায় নামবে। এর জন্য গত কয়েক সপ্তাহ জাল-নৌকা প্রস্তুত করার কাজে ব্যস্ত ছিল জেলেরা।
ইতিপূর্বে ১ মার্চ থেকে ৩০ এপ্রিল পর্যন্ত চাঁদপুর মতলবের ষাটনল থেকে হাইমচরের চরভৈরবী পর্যন্ত ৬০ কিলোমিটার পদ্মা-মেঘনা নদী এলাকায় সরকার ইলিশসহ সকল প্রকার মাছ আহরণ, মওজুদ, ক্রয়-বিক্রয় ও পরিবহন নিষিদ্ধ করে। তবে জেলার ৫১ হাজার ১শ’ ৯০ জন নিবন্ধিত জেলেকে ফেব্রয়ারি থেকে ৪ মাস ৪০ কেজি করে খাদ্য সহায়তা হিসেবে চাল প্রদান করা হচ্ছে। গত দু’মাসের জাটকা সংরক্ষণ অভিযান পর্যালোচনায় দেখা গেছে, নিবন্ধিত জেলেদের মধ্যে অধিকাংশ জেলেরা মাছ ধরা থেকে বিরত থাকলেও কিছু অসাধু ও মৌসুমী জেলে অভয়াশ্রম এলাকায় প্রচুর পরিমাণ জাটকা ইলিশ নিধন করেছে। এই বিশাল নদী এলাকায় জেলা টাস্কফোর্স সদস্য কম হওয়ার পরও সর্বোচ্চ প্রচেষ্টা চালিয়ে জাটকা নিধন পুরোপুরি বন্ধ করা সম্ভব হয়নি।
জেলা মৎস্য কর্মকর্তা আসাদুল বাকী বলেন, ‘করোনার মাঝে গত দু’মাসে জেলা টাষ্কফোর্স জাটকা ইলিশ রক্ষায় ৫শ’ ৫৮টি অভিযান ও ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করেছে। এতে আড়াই কোটি মিটার কারেন্ট জাল জব্দ ও ধ্বংস করা হয়। তিন শতাধিক জেলেকে কারাদন্ড এবং সাড়ে ৪শ’ কিশোর জেলেকে জরিমানা করে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।
এছাড়াও ৪০ মেট্রিক টন জাটকা আটক করে দুঃস্থ ও অসহায়দের মাঝে বিতরণ করা হয়েছে।

Facebook Comments Box