জ্বালানি তেলের দাম বিশ্বজুড়ে কমলেও দেশে সহসাই কমছে না

বৈশ্বিক মহামারি করোনাভাইরাসের (কোভিড-১৯) প্রভাবে বিশ্বজুড়ে ব্যাপক হারে কমেছে জ্বালানি তেলের দাম। তবে এ বছর বাংলাদেশে দাম কমানোর তেমন কোনো সুযোগ নেই বলে জানিয়েছেন বিদ্যুৎ, খনিজ ও জ্বালানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ।

বুধবার (১০ জুন) বিদ্যুৎ, খনিজ ও জ্বালানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের সভাকক্ষ থেকে অনলাইনে এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি একথা বলেন।

‘সারাবিশ্বে জ্বালানি তেলের দাম কমতে শুরু করেছে। আমাদের দেশে দাম কমার কোনো সিদ্ধান্ত আসছে কি-না’-এমন প্রশ্নে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘আমরা এখনও ওই সুবিধার জায়গায় যেতে পারিনি। কারণ আমরা আগের তেল এখনও বিক্রি করার সুযোগ পাইনি। বেশ কিছুদিন জ্বালানি কোথাও ব্যবহার হয়নি। আমরা আশা করি, এখন যদি জ্বালানির ব্যবহার বাড়াতে পারি এবং এখনকার রেট অনুযায়ী যদি জ্বালানি তেল আনতে পারি তাহলে হয়তো সরকার ভবিষ্যতে এটা বিবেচনা করবে। বাট এটা সরকারের ওপর নির্ভর করছে।’

নসরুল হামিদ বলেন ‘বিশ্বব্যাপী তেল এবং গ্যাসের দাম কমেছে-আমরা তো এ সুযোগটা নিতে চাই। আমাদের জ্বালানির ব্যবহারটা বাড়লে সে সুযোগটা নিতে পারি। কিন্তু ব্যবহার তো বাড়ছে না। বেশি দামে কেনা পুরোনো যে তেল রয়ে গেছে সেটা তো আগে শেষ করতে হবে।’

তিনি বলেন, ‘আমি তো চাই কম দামে তেল আনতে। কম দামে তেল এনে বিদ্যুৎ উৎপাদন করা হলে উৎপাদন খরচ কম হতো। তবে আমাদের তেলের যে পরিমাণ স্টক রয়েছে সেটাকে আগে শেষ করতে হবে। স্টক শেষ করতে হলে আমাকে তেলের পাওয়ার প্ল্যান্ট চালু রাখতে হবে, যানবাহন চালু রাখতে হবে, জাহাজ চালু রাখতে হবে। কিন্তু এটা কোভিড-১৯ এর কারণে সম্ভব নয়। সুতরাং, এ বিষয়ে আমরা খুব বেশি সুবিধা পাব (দাম কমানো), সেটা আশা করা ঠিক হবে না। অন্তত এ বছরে এ সুবিধা পাওয়ার আশা করা যায় না।’

Facebook Comments Box