১৫ জুলাই চাঁদে পাড়ি দেবে চন্দ্রযান-২

আলোকিত সকাল ডেস্ক

ভারতের দ্বিতীয় চন্দ্র অভিযানের দিন ঘোষণা করে দিল ভারতীয় মহাকাশ সংস্থা ইসরো। আগামী ১৫ জুলাই রাত ২টা ৫১ মিনিটে চাঁদের উদ্দেশ্যে পাড়ি দেবে চন্দ্রযান-২। বুধবার ইসরোর চেয়ারম্যান ড. কে শিভন এই ঘোষণা করেন। একই সঙ্গে তিনি জানিয়েছেন যে কবে চাঁদের মাটি ছুঁতে পারবে ভারতের দ্বিতীয় চন্দ্রযান। তিনি জানিয়েছেন, সেপ্টেম্বরের ৬ অথবা ৭ তারিখ পৌঁছবে চন্দ্রযান-২। চাঁদে কোনও একটি দিনের শুরুতেই দ্বিতীয় চন্দ্রযানটি সেখানে পৌঁছবে।

তার পর দিনভর সেখানে ওই চন্দ্রযান কাজ করবে। নানা ধরনের পরীক্ষামূলক কাজ সারবে বলে জানিয়েছেন ইসরোর চেয়ারম্যান ড. কে শিভন। ইসরোর তরফে জানানো হয়েছে, চন্দ্রযান-২ চাঁদে জল ও অন্যান্য খনিজ পদার্থ খুঁজবে। এই চন্দ্রযানে ১১টি পে লোডার থাকছে। তার মধ্যে ছ’টি ভারতের, তিনটি ইউরোপের ও দু’টি মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রের পে লোডার।

চন্দ্রযান ২-য়ে রয়েছে তিনটি অংশ। অরবিটার, ল্যান্ডার ও রোভার। চন্দ্রযান-২ এ থাকছে ১৩টি কৃত্রিম উপগ্রহ। ওজন ৩.৮ টন।

সাংবাদিক বিবৃতিতে ভারতের মহাকাশ গবেষণা সংস্থা ইসরো জানিয়েছে দেশের দ্বিতীয় চন্দ্র অভিযানের তিনটি অংশ থাকছে। অরবিটার, ল্যান্ডার (বিক্রম) এবং রোভার (প্রজ্ঞান)। অরবিটার এবং ল্যান্ডারকে একসঙ্গে ‘জিএসএলভি এমকে ৩’ যানে পাঠানো হবে। আর রোভার থাকবে ল্যান্ডারের মধ্যে। চাঁদের দক্ষিন গোলার্ধের মাটি ছোঁয়ার সময় অবশ্য আলাদা হয়ে যাবে ল্যান্ডার।

অরবিটার অংশটি নির্দিষ্ট কক্ষপথে চাঁদের চারিদিকে ঘুরবে। ল্যান্ডার অংশটি চাঁদের মাটি ছোঁবে। আর ল্যান্ডারের ভিতরে রয়েছে রোভার। ল্যান্ডার অবতরণ করলে তার ভিতর থেকে বেরিয়ে আসবে রোভার। পৃথিবী থেকে সংকেত পাঠিয়ে চাঁদের মাটিতে সেটিকে গাড়ির মতো চালাবেন ইসরোর বিজ্ঞানীরা। চন্দ্র পৃষ্ঠে গড়িয়ে গড়িয়ে চলবে রোভার। আর চলতে চলতে সেরে নেবে যাবতীয় জ্যোতির্বিজ্ঞানের পরীক্ষা নিরীক্ষা।

এদিন বেঙ্গালুরুতে চন্দ্রযান-২য়ের ছবি প্রথমবার প্রকাশ্যে নিয়ে আসে ইসরো। এর প্রতিটি অংশের খুঁটিনাটি ছবির মাধ্যমে ইসরোর তরফে এদিন প্রকাশ্যে আনা হয়।

দশ বছর আগে ভারত প্রথম চন্দ্র অভিযান করেছিল। চন্দ্রযান-১ এর তুলনায় চন্দ্রযান-২ কিছুটা হলেও আলাদা। অরবিরটার ও ইমপ্যাক্টর আগেরবারের মতো হলেও এবারও রোভার চন্দ্রযান-১ এর তুলনায় একেবারে আলাদা।

আস/এসআইস

Facebook Comments Box