লিটনের সেঞ্চুরিতে রান পাহাড়ে বাংলাদেশ

52

তিন ম্যাচ সিরিজের প্রথম ওয়ানডেতে জিম্বাবুয়ের মুখোমুখি হয়েছে বাংলাদেশ। এ ম্যাচে লিটন দাসের দুর্দান্ত সেঞ্চুরিতে ভর করে রানের পাহাড় গড়েছে টাইগাররা। নির্ধারিত ৫০ ওভার শেষে বাংলাদেশের সংগ্রহ ৬ উইকেট হারিয়ে ৩২১ রান।

সিলেট আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে টস জিতে ব্যাট করার সিদ্ধান্ত নেন টাইগার ক্যাপ্টেন মাশরাফী বিন মোর্ত্তজা। বাংলাদেশের হয়ে ইনিংস উদ্বোধন করতে করতে নামেন তামিম ইকবাল ও লিটন দাস। শুরু থেকেই বলের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে রান করতে থাকেন লিটন। তবে অপরপ্রান্তে অনেকটাই খোলসবন্দী হয়ে থাকেন তামিম।

প্রথম পাওয়ার প্লের ১০ ওভার থেকে ৪৪ রান যোগ করেন দুই ওপেনার। এর ভেতর লিটনের ব্যাট থেকে ২৭ (২৯ বল) ও তামিমের ব্যাট থেকে ১৫ রান (৩১ বল) আসে। দেখেশুনে খেলতে থাকলেও অভিষিক্ত ওয়েসলে মাধেভেরের সামনে বেশিক্ষণ টিকতে পারেননি তামিম। ৪৩ বলে ২৪ রান করে সাজঘরে ফেরেন এই ওপেনার।

তামিম ফিরলেও রানের চাকা সচল রাখেন লিটন। ৪৫ বলে পূর্ণ করেন ব্যক্তিগত অর্ধশতক। ২০ ওভারে দলীয় শতকের দেখা পায় বাংলাদেশ। এর কিছুক্ষণ পর ৩৮ বলে ২৯ রান করে আউট হন নাজমুল হোসেন শান্ত।

অন্য দুই ব্যাটসম্যান বড় ইনিংস খেলতে না পারলেও ঠান্ডা মাথায় এগোতে থাকেন লিটন দাস। শুরু থেকেই বাহারি শটে খেলতে থাকা এই ওপেনার ৯৫ বলে পূরণ করেন ক্যারিয়ারের দ্বিতীয় শতক। সেঞ্চুরির পর আরো আক্রমণাত্মক খেলতে থাকেন তিনি। পরবর্তী ১০ বলে আরো ২৩ রান করার পর ক্র্যাম্পের শিকার হন এই মারকুটে ব্যাটসম্যান।

শেষ পর্যন্ত ১০৫ বলে ১২৬ রান করে রিটায়ার্ড হার্ট হয়ে মাঠ ছাড়েন লিটন। এর আগে ২৬ বলে ১৯ করে আউট হন মুশফিকুর রহিম। দুজনের বিদায়ের পর মোহাম্মদ মিথুন ও মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ মিলে এগিয়ে নেন দলকে। ব্যক্তিগত ৩২ রানে লেগ বিফোরের শিকার হয়ে রিয়াদ ফিরলে ভাঙে দুজনের ৬৮ রানের জুটি।

৪০ বলে ফিফটি পূরণ করেন মিথুন। তবে পরের বলেই সাজঘরে ফেরেন তিনি। শেষ দিকে মোহাম্মদ সাইফউদ্দিনের ১৫ বলে অপরাজিত ২৮ রানের ঝড়ো ইনিংসে বড় সংগ্রহ নিয়ে মাঠ ছাড়ে টাইগাররা।

জিম্বাবুয়ের হয়ে ২ উইকেট নেন ক্রিস এম্পোফু। এছাড়া কার্ল মুম্বা, মাধেভেরে, ডোনাল্ড তিরিপানো ও মুতোম্বোদজি প্রত্যেকেই একটি করে উইকেট শিকার করেন।

Facebook Comments