বড় অসময়ে চলে গেলেন সাংবাদিক মাহফুজ উল্লাহ: রিজভী

আলোকিত সকাল ডেস্ক

বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব এডভোকেট রুহুল কবীর রিজভী বলেছেন, দেশ ও জাতি এক চরম ক্রান্তিকাল অতিক্রম করছে। এই দুঃসময়ে প্রখ্যাত বরেণ্য সাংবাদিক দেশের বিশিষ্ট নাগরিক, মিডিয়া ব্যক্তিত্ব ও পরিবেশবিদ এবং শিক্ষক মাহফুজ উল্লাহ সাহসী ভূমিকা পালন করে আমাদেরকে উজ্জীবিত করতেন। আমাদের এই দুঃসময়ে তার সাহসী ভূমিকা আমাদেরকে অনুপ্রাণিত করেছে। এমন এক সময়ে সেই সাহসী কন্ঠ বন্ধ হয়ে গেল।

শনিবার বিকালে নয়াপল্টন বিএনপি কার্যালয়ে মাহফুজ উল্লাহ স্মৃতি পরিষদের আয়োজনে বরেণ্য সাংবাদিক মাহফুজ উল্লাহ স্মরণে তিন দিন ব্যাপী কর্মসূচি উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে তিনি এ সব কথা বলেন।

রিজভী বলেন, এই ফ্যাসিবাদ ও স্বৈরাচারী সরকারকে কথা ও কলমের দ্বারা মোকাবিলা করে যাচ্ছিলেন নির্ভীক সাংবাদিক মাহফুজ উল্লাহ। চলমান এই অস্থির সময়ে তার মতো একজন সাহসী মানুষের বেঁচে থাকা আজ বড়ই প্রয়োজন ছিল। জুলুম শাহীর বিরুদ্ধে মাহফুজ উল্লাহর আপোসহীন ভূমিকা দেশ ও জাতি গভীর শ্রদ্ধার সাথে স্মরণে রাখবে।

মরহুম মাহফুজ উল্লাহ স্মরণে তিনদিনব্যাপী কর্মসূচিতে আছে কোরআন খতম, ইফতার, এতিম-অসহায়-গরিব ও পথ শিশুদের মাঝে খাবার সামগ্রী বিতরণ এবং একটি স্মরণিকা “স্মৃতির পিঞ্জরে”প্রকাশনা উপলক্ষ্যে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল।

প্রথম দিনের কর্মসূচি ইফতার বিতরণ ও দোয়া মাহফিল আয়োজন করেন বিএনপি কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য ও সিলেট মহানগর বিএনপির সাবেক আহ্বায়ক অধ্যাপক ডা. শাহরিয়ার হোসেন চৌধুরী।

এতে সভাপতিত্ব করেন মাহফুজ উল্লাহ স্মৃতি পরিষদের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি মোহাম্মদ অলিদ সিদ্দিকী তালুকদার ও সঞ্চালনা করেন মো. আবদুস সাত্তার পাটোয়ারী, দপ্তর সম্পাদক, জাতীয়তাবাদী ছাত্রদল।

আলোচনা সভায় প্রধান আলোচক হিসেবে বক্তব্য রাখেন সাংবাদিক আবদুল আউয়াল ঠাকুর, বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সাংবাদিক কাফি কামাল, ফেডারেল সাংবাদিক ইউনিয়ন (বিএফইউজে) প্রচার সম্পাদক আসাদুজ্জামান আসাদ, ঢাকা সাংবাদিক ইউনিয়ন (ডিইউজের) সাংগঠনিক সম্পাদক মো. দিদারুল আলম, ছাত্রদলের যুগ্ম সম্পাদক মামুন হোসেন ভূঁইয়া, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক সাইদুর রহমান রয়েল, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক নাসির উদ্দিন শাওন, সহ-পাঠাগার সম্পাদক মো. সোহেল আলম, সহ-স্বাস্থ্যবিষয়ক সম্পাদক তৌহিদ আউয়াল।

কোরআন তেলাওয়াত করেন মাওলানা শাহ আলম ও মাওলানা ইব্রাহিম খলিল এবং মোনাজাত পরিচালনা করেন হযরত মাওলানা মির্জা ইয়াসির আরাফাত।

আস/এসআইসু

Facebook Comments Box