বিয়ে করতে ভয় পাচ্ছেন পপি

আলোকিত সকাল ডেস্ক

তিনবার জাতীয় চলচ্চিত্র পুরস্কার জয়ী অভিনেত্রী ‘সাদিকা পারভীন পপি’। দেড়যুগেরও বেশি সময় ধরে চলচ্চিত্রে অভিনয় করছেন তিনি। এবার ঈদে তার কোনো সিনেমা মুক্তি না পেলেও ঈদের একাধিক নাটক, টেলিফিল্মে কাজ করেছেন তিনি। বর্তমানে বেশ কয়েকটি চলচ্চিত্র এবং ওয়েব সিরিজে কাজ করছেন এই অভিনেত্রী। ঈদ, সমসাময়িক ব্যস্ততা এবং বিয়ে প্রসঙ্গেও কথা হলো তার সঙ্গে-
বিয়ে করতে ভয় পাচ্ছেন পপি
সাদিকা পারভীন পপি
ঈদের ছুটিতে…

আমি প্রতিবারের মতোই এবারের ঈদের ছুটি কাটিয়েছি আমার গ্রামের বাড়ি খুলনাতে। ছোট ভাইসহ পরিবারের সবার সঙ্গে খুব মজা করেছি। ছোট ভাইয়ের অসুস্থতার কারণে আরও কিছুদিন থাকব। এরপর ঢাকায় এসে পুরোদমে কাজ শুরু করব।

নতুন কাজের খবর…

ঈদের আগে কয়েকটি ছবির শুটিং করেছি। সেগুলোর কাজ এখনও শেষ হয়নি। তবে বিভিন্ন চ্যানেলের একাধিক নাটক, টেলিফিল্মে কাজ করেছি। সেগুলো ঈদ অনুষ্ঠান মালায় দেখানো হচ্ছে। নতুন কাজের মধ্যে সাহসী যোদ্ধা, সেভ লাইভ, স্বপ্নবাজি ও কাঠগড়ায় শরৎচন্দ্র ছবিগুলোর শুটিং বাকি আছে। শিডিউল অনুযায়ী এগুলোর কাজ শেষ করব।

সবখানেই সরব…

নতুন যুগের সঙ্গে তাল মিলিয়ে সবাইকে কিন্তু সরব থাকতে হবে। আমিও সেটির চেষ্টা করছি। অনেকদিন তো এই অঙ্গন থেকে অনেক দূরে সরে ছিলাম। তবে এখন চলচ্চিত্র সংশ্লিষ্ট অনুষ্ঠানগুলোতে বেশি করে সময় দেয়ার চেষ্টা করছি। তাতে সবার সঙ্গে আন্তরিকতা আরও বাড়বে।

পরিশ্রম আর ব্যস্ততা…

তারকারাতো সাধারণ মানুষের মতো জীবনযাপন করতে পারে না। সাধারণ মানুষের নজর এড়াতে বোরকা পরে তাকে অনেক সময় বাইরে যেতে হয়। সাধারণ মানুষ মনে করে চলচ্চিত্র তারকারা অনেক বিলাসী জীবনযাপন করে। অনেক কষ্ট করে তারকা হতে হয়। আমার প্রতিদিন ১৮ ঘণ্টাই পরিশ্রম করতে হয়। ক্যামেরার সামনে যাওয়ার আগে ঘণ্টা বা দুই ঘণ্টা পরিশ্রম করে নিজেকে প্রস্তুত করতে হয়। ঈদে একটি চ্যানেলে ডিএ তায়েব ভাইয়ের সঙ্গে ‘সোনা বন্ধু’ প্রেক্ষাগৃহে আবারও চালানো হয়েছে। সাড়াও পেয়েছি বেশ। আর আমার কাছে মনে হলো পপিকে আবার ব্যস্ত হয়ে

পড়তে হবে।

বিয়ে নিয়ে…

আমি বুঝি না, সবাই আমার বিয়ে নিয়ে এত উদ্বিগ্ন কেন! সত্যি বলতে কী, বিয়েশাদিতে ইদানীং ভয় পাচ্ছি। বিয়ের পর পরিণতি কোন দিকে মোড় নেবে- এ নিয়ে সংশয়ে আছি। অনেক নায়িকাই বিয়ে করে অসুখী জীবনযাপন করছেন। কেউ কেউ একাধিক বিয়ে করেও শান্তিতে নেই। বিয়ের পরও অন্যের সঙ্গে পরকীয়া করছে। এসব ভেবে বিয়ের চিন্তা মাথা থেকে দূরে সরিয়ে রেখেছি।

ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা…

এখন মানুষের অনেক আয়ু কমেছে। আর মানুষ কিভাবে তার ভবিষ্যৎ বলতে পারবে। তবে সবার কাছে দোয়া চাইব যেন আলস্নাহর রহমতে পরিবারের সবাইকে নিয়ে অনেক ভালো থাকতে পারি।

আস/এসআইসু

Facebook Comments Box