বিএনপির কার্যালয়ে তালা ঝুলিয়েছে ছাত্রদল নেতাকর্মীরা

আলোকিত সকাল ডেস্ক

নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে তালা ঝুলিয়েছে নির্ধারিত বয়সসীমার বাধ্যবাধকতা বাতিলের দাবিতে আন্দোলনরত ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা।

মঙ্গলবার (১১ জুন) বেলা সোয়া ১১ টায় নয়াপল্টনের মূল ফটকে তারা তালা ঝুলিয়ে দেয়।

এর আগে জাতীয়তাবাদী ছাত্রদলের কমিটি বিলুপ্তির ঘোষণার সময় নতুন কমিটিতে নেতা হওয়ার বিষয়ে কিছু শর্ত জুড়ে দেয় বিএনপির হাইকমান্ড। এরমধ্যে উল্লেখযোগ্য হচ্ছে বয়সসীমা। নতুন কমিটিতে কাউকে নেতা হতে হলে তাকে ন্যূনতম এসএসসি বা সমমানের ছাত্রত্ব ও ২০০১ সালে এসএসসি বা সমমানের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে হবে। এসব শর্তের বিরুদ্ধেই আন্দোলন করছে ছাত্রদলের বিগত কমিটির নেতাকর্মীরা। এ আন্দোলনের অংশ হিসেবে নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের মূল ফটকে তালা ঝুঁলিয়ে দিয়েছে তারা।

মঙ্গলবার (১১ জুন) সকাল সোয়া ১১ টায় রাজধানীর নয়াপল্টন বিএনপির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ের সামনে এ আন্দোলন শুরু করেন সাবেক ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা। এর আগে, সকাল ১০ টা থেকে সাবেক ছাত্র নেতারা নয়াপল্টনের সামনে জড়ো হতে থাকে।

পরে ১১ টা ২০ মিনিটে কার্যালয়ের সামনে আসেন বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান বরকত উল্লাহ বুলু, সাংগঠনিক সম্পাদক ফজলুর হক মিলন, প্রচার সম্পাদক শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী এবং প্রশিক্ষণ বিষয় সম্পাদক এবিএম মোশারফ হোসেন। বিএনপির এই চার নেতা কার্যালয়ে প্রবেশ করতে চাইলে তাদেরকেও বাধা দেয় সাবেক ছাত্রনেতারা। এ সময় তাদের সঙ্গে ছাত্রনেতাদের কমিটির বিষয়ে তর্ক-বিতর্ক হয়।

বিএনপির চার নেতাকে ছাত্রনেতারা বলেন, বয়সসীমা না করে ছাত্রদলের ধারাবাহিক কমিটি দিতে হবে। আর বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী একাই দুটি পদ নিয়ে অফিসকেই বাড়ি-ঘর বানিয়েছেন। রিজভীকে এখান থেকে বের করে নিয়ে যান।

এ সময় শহীদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী কার্যালয়ে ভিতরে গিয়ে কথা বলার অনুরোধ করলে ছাত্রদলের নেতাকর্মীরা তাতে অসম্মতি জানান।

এ সম্পর্কে ফজলুল হক মিলন সাংবাদিকদের বলেন, কমিটির বিষয়ে সিদ্ধান্ত দল থেকে দেয়া হয়েছে। আর আমরা সবাই বসে এটা কার্যকর করবো। দুঃখ ও অভিমান থাকতেই পারে। এটা অস্বাভাবিক কোন ঘটনা না। সবার দুঃখ ও বেদনা আমরা শুনবো এবং তা বিএনপির ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান তারেক রহমানকে জানাবো।

গত ৩ জুন বিএনপির সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী স্বাক্ষরিত এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে ছাত্রদলের মেয়াদোত্তীর্ণ কেন্দ্রীয় কমিটি বাতিল করা হয়। এতে বলা হয়, আগামী ৪৫ দিনের মধ্যে কাউন্সিলদের মতামতের ভিত্তিতে সংগঠনটির নতুন কেন্দ্রীয় সংসদ গঠন করা হবে।

ছাত্রদলের অনুষ্ঠিতব্য কাউন্সিলে প্রার্থী হওয়ার যোগ্যতার বিষয়ে বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, ছাত্রদলের প্রাথমিক সদস্য হতে হবে। অবশ্যই বাংলাদেশে অবস্থিত কোনো শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানের ছাত্র হতে হবে। তাদের ২০০০ সাল থেকে পরবর্তীতে যে কোনো বছরে এসএসসি অথবা সমমানের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হতে হবে।

আস/এসআইসু

Facebook Comments Box