এমন ভুল করা পাইলটের উচিত হয়নি: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী

আলোকিত সকাল ডেস্ক

প্রধানমন্ত্রীকে আনতে যাওয়া বিমানের পাইলট ভুল করেই পাসপোর্ট ছাড়া চলে গেছেন বলে জানিয়েছেন স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল। তবে পাইলটের এটা কোনোক্রমেই উচিত হয়নি বলে জানান মন্ত্রী। প্রধানমন্ত্রীর বিমানের পাইলট হিসেবে তাকে আরও বেশি সতর্ক হওয়া উচিত ছিল বলে মনে করেন তিনি।

শনিবার দুপুরে র‌্যাব সদরদপ্তরে এক অনুষ্ঠানে সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, ‘পাইলট ভুল করে পাসপোর্ট নেননি বলে আমরা জানতে পেরেছি। তবে তার এমন ভুল করা উচিত হয়নি, যেহেতু এটি প্রধানমন্ত্রীর বিমান। ইমিগ্রেশন পুলিশেরও উচিত ছিল পাসপোর্টটি দেখা। তার গাফিলতির কারণে তাকে বরখাস্ত করা হয়েছে।’

স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, ‘বিমানবন্দরে দুই-তিন জায়গায় চেক হয়। তারপরও উনি চলে গেছেন। আমাদের ইমিগ্রেশনে তিনি ফিঙ্গার প্রিন্ট দিয়েছেন। ইমিগ্রেশন পুলিশ জেনারেল ডিক্লারেশন দেখেছেন। পাসপোর্ট দেখতে চাইলে সবসময় পাইলটরা বলেন, পকেটে আছে। তারপরও আমাদের ইমিগ্রেশন পুলিশের গাফিলতির কারণে পুলিশপ্রধান ইতিমধ্যে তাকে সাসপেন্ড করেছেন।’

মন্ত্রী জানান, এ ঘটনায় একটি তদন্ত কমিটি গঠন করা হয়েছে। আমরা তদন্ত করছি। তদন্তের পর বিস্তারিত আরও জানা যাবে।

ঈদের সময় নিরাপত্তার বিষয়ে আসাদুজ্জামান খাঁন কামাল বলেন, ‘সারা বাংলাদেশে নিরাপত্তা ভালো ছিল, দেশের জনগণ সুন্দরভাবে ঈদ উদযাপন করেছে। নিরাপত্তাবাহিনীর সঙ্গে জনগণের সহযোগিতা ছিল।’

ঈদযাত্রায় মানুষের ভোগান্তি কম ছিল জানিয়ে তিনি বলেন, ‘রাস্তাঘাট মোটামুটি ক্লিয়ার ছিল। শুধু সিরাজগঞ্জ বাইপাসে একটু সমস্যা ছিল। তারপরও মানুষ সুন্দরভাবে পরিবারের সঙ্গে ঈদ উদযাপন করেছেন।’

সেখানে মুক্তিযোদ্ধা বিষয়ক মন্ত্রী আ ক ম মোজাম্মেল হক, পুলিশের আইজিপি জাবেদ পাটোয়ারী, র‌্যাবের মহাপরিচালক বেনজীর আহমেদসহ ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

আস/এসআইসু

Facebook Comments Box