ঈদে সালমানের ধামাকা

আলোকিত সকাল ডেস্ক

ঈদ-পূজা-দীপাবলি কিংবা বড়দিনের মতো উৎসবে বলিউড তাকিয়ে থাকে শাহরুখ, আমির ও সালমান এই তিন খানের দিকেই। আবার এই তিন খানের মধ্যে কে সেরাÑ এটা নিয়ে ভক্তদের মধ্যে একটা লড়াই লেগেই থাকে।

ভক্তদের লড়াই হলেও তারা নিজেরা কিন্তু কখনই বক্স অফিস-যুদ্ধে নামেন না। এক দশকের বেশি সময় ধরে তিন খান বছরের তিন বিশেষ সময়ে হাজির হন নিজেদের সেরা সিনেমা নিয়ে। দিওয়ালিতে শাহরুখ খান, বড়দিনে আমির খান আর ঈদ মানেই সালমান খান। হ্যাঁ, বলিউডের ঈদ শুধুই সালমানের। ঈদ উৎসবে বেশ কয়েক বছর ধরে বলিউডের দর্শকরা পেয়ে এসেছেন সালমান খানের ছবি।

সেই ২০০৯ সালে ‘ওয়ান্টেড’ দিয়ে ঈদে সালমানের ঈদযাত্রা শুরু হয়েছিল। সেই ছবির জনপ্রিয়তার পর থেকে ঈদে সালমানের ছবি মুক্তি পাওয়া যেন রেওয়াজ হয়ে দাঁড়িয়েছিল। আর প্রতি ঈদেই সালমানের ছবি বক্স অফিসে বাজিমাত করেছে।

ফলে ঈদ মানেই সল্লু ভাইয়ের হিট ছবি। বরাবরের মতো এবারের ঈদেও আসছেন ভাইজান। তার এবারের ছবির নাম ‘ভারত’। ফলে প্রতিবারের মতো এবার সালমান নিয়ে আসছেন তার বহুরূপী ধামাকা নিয়ে। ‘টাইগার জিন্দা হ্যায়’-এর ব্যাপক সাফল্যের পর ফের সালমান ও ক্যাটরিনাকে এক করলেন পরিচালক আলি আব্বাস জাফর। সালমান খান, ক্যাটরিনা কাইফ, দিশা পাটানি ছাড়া এ ছবিতে আরও দেখা যাবে সুনীল গ্রোভার, জ্যাকি শ্রফ আর টাবুকে।

ছবিটি প্রযোজনা করছে অতুল অগ্নিহোত্রীর রিল লাইফ প্রডাকশন লিমিটেড ও সালমান খান ফিল্মস। দক্ষিণ কোরিয়ার ‘অ্যান ওডে টু মাই ফাদার’ ছবির রিমেক ‘ভারত’। কিছুদিন আগে মুক্তি পেয়েছে ছবির ট্রেলার। দারুণ গান, নাচ, সার্কাস, রোমান্স ও কমেডিতে ঠাসা সাড়ে তিন মিনিটের এ ট্রেলার যেন বাড়িয়ে দিল সিনেমাটি দেখার উত্তেজনার মাত্রা।

সার্কাসের স্ট্যাটম্যান হিসেবে সালমান, তার সঙ্গে দিশা পাটানির অ্যারোবেটিক দৃশ্য চোখ ধাঁধিয়ে দিয়েছে দর্শকদের। ট্রেলারে সালমানকে প্রথমে দেখা গেল একজন বয়স্ক লোকের রূপে। এর পর ফিরলেন যৌবনে। তার পর দেখা দিলেন নায়িকার সঙ্গে।

পরপর তিনটি রূপে নায়িকাকে সঙ্গে নিয়ে উপস্থিতি জানান দিলেন। ছবিতে ১৮ থেকে ৭০ বছর পর্যন্ত পাঁচটি বয়সের সালমান খানকে দেখা যাবে। ষাটের দশকের সার্কাসের ওপর নির্মিত এ ছবি। একজন সাধারণ মানুষের জীবনকে কেন্দ্র করে ভারতের ইতিহাসও বর্ণিত হবে এ ছবিতে। অনেকের মতে, চলতি বছরের অন্যতম সেরা সিনেমা হতে যাচ্ছে সালমান খান অভিনীত ‘ভারত’। ঈদ উপলক্ষে আগামী ৫ জুন মুক্তি পাবে বহুল আলোচিত সিনেমাটি।

আস/এসআইসু

Facebook Comments Box